ঢাকা১২ এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ
  1. ! Без рубрики
  2. Echt Geld Casino
  3. test2
  4. অর্থনীতি
  5. আন্তর্জাতিক
  6. আরো
  7. এক্সক্লুসিভ
  8. খেলাধুলা
  9. জাতীয়
  10. তথ্য প্রযুক্তি
  11. দেশজুড়ে
  12. প্রেস বিজ্ঞপ্তি
  13. বাণিজ্য
  14. বিনোদন
  15. মতামত

নির্বাচনকেন্দ্রিক পশ্চিমা হস্তক্ষেপের মধ্যেও শীর্ষ পদগুলোতে বাংলাদেশের জয়

admin
ডিসেম্বর ৭, ২০২৩ ৮:৩২ অপরাহ্ণ
Link Copied!

নিজস্ব প্রতিবেদক

 

বাংলাদেশের আসন্ন দ্বাদশ সংসদ নির্বাচনকে কেন্দ্র করে পশ্চিমা দেশগুলোর হস্তক্ষেপ প্রকাশ্য। তার মধ্যেও গত এক মাসে বেশ কয়েকটি আন্তর্জাতিক গুরুত্বপূর্ণ পদে নির্বাচনের মাধ্যমে জয়লাভ করেছে বাংলাদেশ।

 

গত নভেম্বর থেকে ডিসেম্বর এক মাসের মধ্যে বাংলাদেশ সরাসরি ভোটসহ ছয়টি আন্তর্জাতিক নির্বাচনে জয়লাভ করেছে। এসব নির্বাচনের মধ্যে রয়েছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়া অঞ্চলের আঞ্চলিক পরিচালক, ইন্টারন্যাশনাল মেরিটাইম অর্গানাইজেশন (আইএমও) কাউন্সিলের সদস্য, ইউনেস্কো নির্বাহী বোর্ডের সদস্য এবং কমন ফান্ড ফর কমোডিটিজের (সিএফসি) নির্বাচন। এছাড়া রাসায়নিক অস্ত্র নিষিদ্ধকরণ সংস্থার (ওপিসিডব্লিউ) নির্বাহী সদস্য হয়েছে বাংলাদেশ এবং  লন্ডনে ইন্টারন্যাশনাল মেরিটাইম অর্গানাইজেশনের (আইএমও) ৩৩তম অ্যাসেম্বলির ফার্স্ট ভাইস প্রেসিডেন্ট পদে বাংলাদেশের জয়।

 

এসব পদে বাংলাদেশের অবস্থান পাকাপোক্ত হয়েছে এমন সময় যখন পশ্চিমাদেশগুলো বিশেষ করে যুক্তরাষ্ট্র গণতন্ত্র ও মানবাধিকারের নামে নগ্ন হস্তক্ষেপ করছে। যার প্রমাণ দিয়েছে আসন্ন নির্বাচনকে কেন্দ্র করে ভিসা নিষেধাজ্ঞার হুমকি। নির্বাচন অবাধ ও সুষ্ঠু করতে এই নতুন ভিসানীতি ঘোষণা করেছে ওয়াশিংটন। যদিও সরকার বারবার একই পথে হাঁটার কথা স্মরণ করিয়ে দিচ্ছে। এছাড়া ইউরোপীয় ইউনিয়নও নভেম্বরে পরিস্থিতি নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করে এবং সহিংসতা থেকে বিরত থাকতে এবং অংশগ্রহণমূলক নির্বাচন পরিচালনার জন্য শান্তিপূর্ণ উপায় খুঁজে বের করার জন্য সকলের প্রতি আহ্বান জানায়।

 

নির্বাচনকেন্দ্রিক বিরোধীদলের সহিংসতা, জ্বালাও পোড়াও কর্মসূচির কারণে অনেকে ধারনা করেছিল আন্তর্জাতিক সম্প্রদায় থেকে বাংলাদেশ বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়েছে। এমন প্রেক্ষাপটে এসব গুরুত্বপূর্ণ পদগুলোতে বাংলাদেশের জয়লাভকে একটি নতুন যুগে প্রবেশ বলেই মনে করছে কূটনীতিক মহল।

 

বিশ্বস্বাস্থ্য সংস্থার দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ার আঞ্চলিক পরিচালক পদে বিজয়ী হয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কন্যা ও আন্তর্জাতিক খ্যাতিসম্পন্ন মানসিক স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞ সায়মা ওয়াজেদ। গত ১ নভেম্বর ভারতের নয়াদিল্লীতে বাংলাদেশ, ভুটান, ডেমোক্রেটিক পিপলস রিপাবলিক অব কোরিয়া (ডিপিআরকে), ভারত, ইন্দোনেশিয়া, মালদ্বীপ, নেপাল, শ্রীলংকা, থাইল্যান্ড ও তিমুর-লেস্তে ভোটের মাধ্যমে এই পদের পরবর্তী আঞ্চলিক পরিচালক নির্বাচিত করে।

 

ভোটে বাংলাদেশ মনোনীত সায়মা ওয়াজেদ পেয়েছেন ৮ ভোট। নেপাল মনোনীত অপর প্রার্থী ড. শম্ভু প্রসাদ আচার্য দুটি ভোট পেয়েছেন। যদিও নির্বাচনের আগে সায়মা ওয়াজেদের বিরুদ্ধে অনেক অপপ্রচার চালানো হয়েছে। কিন্তু শেষ পর্যন্ত যোগ্যতাবলে তিনি জয়লাভ করেছেন। আগামী বছরের ১ ফেব্রুয়ারি তিনি পাঁচ বছরের মেয়াদে দায়িত্ব গ্রহণ করবেন। এর ফলে সায়মা ওয়াজেদ হবেন প্রথম বাংলাদেশি যিনি ১৯৪৮ সালে আত্মপ্রকাশ করা বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার আঞ্চলিক বিভাগের এই পদে অধিষ্ঠিত হবেন।

 

আইএমও জাতিসংঘের একমাত্র বিশেষায়িত সংস্থা যা জাহাজ-অপারেটিং ফ্ল্যাগ স্টেটস, নাবিক, সামুদ্রিক সুরক্ষা এবং সামুদ্রিক দূষণকে প্রভাবিত করে বিশ্বব্যাপী শিপিং স্ট্যান্ডার্ডগুলো নিয়ন্ত্রণ করে। গত ১ ডিসেম্বর লন্ডনে অনুষ্ঠিত নির্বাচনে বাংলাদেশ ২০২৪-২০২৫ মেয়াদের জন্য আইএমও কাউন্সিলের সদস্য নির্বাচিত হয়েছে। আইএমও সদরদপ্তরে ১৬৮টি ভোটের মধ্যে ১২৮টি ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছে বাংলাদেশ। আইএমও কনভেনশনের ১৬ ও ১৭ নম্বর অনুচ্ছেদ অনুযায়ী তিন ক্যাটাগরিতে কাউন্সিল সদস্য পদে গোপন ব্যালটে ভোট হয়। এই ভোটের মাধ্যমে ২০২৪-২০২৫ সালের জন্য ৪০ সদস্যের নতুন আইএমও কাউন্সিল নির্বাচিত হয়।

 

২০২৪-২৫ মেয়াদে কাউন্সিলের সদস্য থাকাকালীন বাংলাদেশ তার আন্তর্জাতিক বাণিজ্য (যার ৯০ শতাংশ সমুদ্র দ্বারা পরিচালিত হয়), ডিজিটালাইজড এবং স্মার্ট বন্দরে রূপান্তর, জাহাজ পুনর্ব্যবহার সম্পর্কিত হংকং কনভেনশনের সাথে সম্মতি এবং বাংলাদেশের জাহাজদ্বারা সবুজ জ্বালানি ব্যবহারসহ বাংলাদেশের শিপিং এবং সামুদ্রিক শিল্পের জন্য অন্যান্য গুরুত্বপূর্ণ বিষয় নিয়ে আলোচনা করবে।

 

এছাড়া যুক্তরাজ্যে নিযুক্ত বাংলাদেশের হাইকমিশনার সাইদা মুনা তাসনিম গত ২৭ নভেম্বর লন্ডনে ইন্টারন্যাশনাল মেরিটাইম অর্গানাইজেশনের (আইএমও) ৩৩তম অ্যাসেম্বলির ফার্স্ট ভাইস প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত হন। ১৭৫টি সদস্য রাষ্ট্রের সমন্বয়ে গঠিত আইএমও সাধারণ পরিষদের অন্যতম শীর্ষ পদে প্রথমবারের মতো বাংলাদেশের একজন জ্যেষ্ঠ কূটনীতিককে ভোট দেওয়া হলো।

 

পাশপাশি রাসায়নিক অস্ত্র নিরস্ত্রিকরণ সংস্থার (ওপিসিডব্লিউ) সর্বোচ্চ কার্যনির্বাহী পরিষদের সদস্য নির্বাচিত হয়েছে বাংলাদেশ। ওপিসিডব্লিউ ২৮তম বার্ষিক সম্মেলনে ২০২৪-২৬ মেয়াদে বাংলা‌দেশ কার্যনির্বাহী পরিষদের সদস্য নির্বাচিত হওয়ার তথ্য জা‌নি‌য়েছে দ্য হে‌গের বাংলা‌দেশ মিশন।

 

বাংলা‌দেশ মিশন জানায়, সংস্থা‌টি‌তে একই মেয়াদে এশিয়া থেকে ইরান, মালয়েশিয়া ও পাকিস্তান নির্বাচিত হয়েছে। এশিয়া গ্রুপ থেকে কার্যনির্বাহী পরিষদের অন্যান্য বর্তমান দেশগুলো হচ্ছে চীন, জাপান, দক্ষিণ কোরিয়া, ভারত, সৌদি আরব এবং কাতার।

 

বাংলাদেশ দূতাবাস বল‌ছে, এক্সিকিউটিভ কাউন্সিলে সদস্যপদ লাভের জন্য ওপিসিডব্লিউতে বাংলাদেশের স্থায়ী মিশন দীর্ঘ সময় এশিয়া গ্রুপের নেগশিয়েশনে সক্রিয় ও গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে। ১৯৩টি সদস্য রাষ্ট্রের মধ্যে মাত্র ৪১টি দেশ দুই বছর মেয়াদের জন্য এক্সিকিটিভ কাউন্সিলের সদস্য নির্বাচিত হয়।

 

রাষ্ট্রদূত শেখ মোহাম্মদ বেলাল কমন ফান্ড ফর কমোডিটিজের (সিএফসি) ব্যবস্থাপনা পরিচালক হিসেবে পুনরায় নির্বাচিত হয়েছেন। গত ২২ নভেম্বর দ্য হেগে অনুষ্ঠিত গভর্নিং কাউন্সিলের ৩৫তম বার্ষিক সভায় ৬৮ দশমিক ০১ শতাংশ ভোট পেয়ে তিনি চার বছরের মেয়াদে পুনরায় নির্বাচিত হন। সিএফসির ৩৪ বছরের ইতিহাসে বাংলাদেশের প্রার্থী রাষ্ট্রদূত বেলাল দুই-তৃতীয়াংশের বেশি ভোট পেয়ে নির্বাচিত প্রথম ব্যবস্থাপনা পরিচালক।

 

বিজয়ের পর এক প্রতিক্রিয়ায় রাষ্ট্রদূত বেলাল বলেন, ‘সব প্রধান আঞ্চলিক গোষ্ঠীর কাছ থেকে বাংলাদেশের প্রার্থিতার প্রতি অভূতপূর্ব সমর্থনের কারণেই এই ঐতিহাসিক বিজয় সম্ভব হয়েছে। ২০১৯ সালের ৪ ডিসেম্বর তিনি প্রথম সিএফসির ব্যবস্থাপনা পরিচালক নির্বাচিত হন এবং ২০২০ সালের ৮ এপ্রিল আনুষ্ঠানিকভাবে তিনি দায়িত্ব গ্রহণ করেন।

 

এছাড়া বাংলাদেশের আরেকটি গুরুত্বপূর্ণ অর্জন ছিল ২০২৩-২০২৭ মেয়াদে ইউনেস্কোর নির্বাহী বোর্ডের সদস্য পদ লাভ। ১৮৪ সদস্যের মধ্যে ১৮১ জন গত ১৫ নভেম্বর প্যারিসে জাতিসংঘের সদর দপ্তরে অনুষ্ঠিত নির্বাচনে অংশ নেন। বাংলাদেশ পেয়েছে ১৪৪ ভোট। ইউনেস্কো সাধারণ সম্মেলনে বাংলাদেশ প্রতিনিধি দলের নেতৃত্ব দানকারী শিক্ষামন্ত্রী দীপু মনি বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে আন্তর্জাতিক অঙ্গনে আমাদের গভীর সম্পৃক্ততা ও কূটনৈতিক অগ্রগতির ফল স্বরূপ ইউনেস্কোতে বাংলাদেশের বিজয়’।

এই সাইটে নিজম্ব নিউজ তৈরির পাশাপাশি বিভিন্ন নিউজ সাইট থেকে খবর সংগ্রহ করে সংশ্লিষ্ট সূত্রসহ প্রকাশ করে থাকি। তাই কোন খবর নিয়ে আপত্তি বা অভিযোগ থাকলে সংশ্লিষ্ট নিউজ সাইটের কর্তৃপক্ষের সাথে যোগাযোগ করার অনুরোধ রইলো।বিনা অনুমতিতে এই সাইটের সংবাদ, আলোকচিত্র অডিও ও ভিডিও ব্যবহার করা বেআইনি।